Printed on Sun May 09 2021 7:16:13 AM

ভূরুঙ্গামারীতে কমিটি গঠন করতে নিয়ে মার খেল আওয়ামী লীগ নেতারা

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি
সারাদেশ
কমিটি গঠন
কমিটি গঠন
কুড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারীতে আওয়ামী লীগের ওয়ার্ড কমিটি গঠন করতে গিয়ে ইউনিয়ন পর্যায়ের নেতাকর্মীদের হাতে মারপিটের শিকার হয়েছে উপজেলার চার নেতা। এ ঘটনায় ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতিসহ ১৩ জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

মারপিটের স্বীকার উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সরকার রকীব আহমেদ বাদী হলে মামলা করলে ইউনিয়ন যুবলীগের সাবেক সভাপতি আবু হানিফকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

৩ জানুয়ারি রোববার বিকেলে উপজেলার শিলখুড়ি ইউনিয়নের ধলডাঙ্গা বাজারের এই ঘটনায় ওই ইউনিয়ন সভাপতিসহ পাঁচ নেতাকর্মীকে সাময়িক বহিস্কারও করা হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, শিলখুড়ি ইউনিয়নের উত্তর তিলাই মাদরাসা মাঠে ৯ নম্বর ওয়ার্ড কমিটি গঠনের উদ্দেশে কাউন্সিল অনুষ্ঠানের নির্ধারিত তারিখ ছিলো। কাউন্সিলের দ্বায়িত্বপ্রাপ্ত উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি ও সাবেক অধ্যক্ষ মুকুল চৌধুরী, যুগ্মসম্পাদক সরকার রকীব আহমেদ, আওয়ামী লীগ নেতা ও প্রধান শিক্ষক সাইফুর রহমান এবং প্রভাষক বদরুল আলম সভাস্থলে যোগ দেয়ার জন্যে রওনা দেন।

তাদের বহনকৃত গাড়িটি ধলডাঙ্গা বাজারের কাছে পৌছলে শিলখুড়ি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আলতাফ হোসেনের নেতৃত্বে শতাধিক লোক গাছের গুড়ি ফেলে তাদের গতিরোধ করে। এসময় উপজেলা নেতারা গাড়ি থেকে বেরিয়ে আসলে তাদের বেধড়ক মারপিট করা হয়। পরে স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে ভূরুঙ্গামারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

যুগ্মসম্পাদক সরকার রকীব আহমেদ বলেন, আমাদের গাড়িটি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আলতাফ হোসেনের বাড়ির কাছাকাছি গেলে শতাধিক লোকজন গাছের গুড়ি ফেলে গতিরোধ করে। আমরা গাড়ি থেকে নামলে তারা অতির্কিত হামলা করে। তারা আমার উপর মোটরসাইকেল তুলে চাপা দিয়ে হত্যা চেষ্টা করে। পরে স্থানীয়রা এসে উদ্ধার করে।

তিনি বলেন, এ ঘটনায় রোববার রাতেই এক জরুরি সভায় ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আলতাফ হোসেন, সহসভাপতি আবুবকর সিদ্দিক, আব্দুল কাদের তালুকদার, নুরুল ইসলাম এবং ছাত্রলীগের ইউনিয়ন সভাপতি ওমর ফারুককে সাময়িক বহিস্কারসহ একটি মামলা দায়ের করা হয়।

উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি শাহজাহান সিরাজ জানান, দীর্ঘদিন থেকে আলতাফ হোসেনের নেতৃত্বে গুটি কয়েক নেতাকর্মী বিভিন্ন অপকর্ম করে আসছে। এবার কাউন্সিলে তাদের পদ না থাকার ভয়ে এই ন্যাক্কারজনক ঘটনা ঘটিয়েছে। সাংগঠনিকভাবেও তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ভূরুঙ্গামারী থানার অফিসার ইনচার্জ আতিয়ার রহমান মামলা দায়ের এবং এ ঘটনায় একজন গ্রেফতারের বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

ভয়েস টিভি/এমএইচ
যোগাযোগঃ
ভয়েস টিভি ৮০/৩, ভিআইপি রোড, খান টাওয়ার, কাকরাইল,
ঢাকা-১০০০, বাংলাদেশ
ফোনঃ +৮৮ ০২ ৯৩৩৮৫৩০
https://bn.voicetv.tv/news/30899
© স্বত্ব ভয়েস টিভি 2021 — ভয়েস টিভি
শাপলা মিডিয়ার একটি প্রতিষ্ঠান
সর্বশেষ সংবাদ