Printed on Wed Jan 20 2021 11:22:02 PM

ফিরে দেখা পাবনা

আরিফ আহমেদ সিদ্দিকী, পাবনা
সারাদেশ
ফিরে দেখা পাবনা
ফিরে দেখা পাবনা
দেশের সর্ববৃহৎ রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্প নির্মাণ, পদ্মা নদীতে নৌবন্দর চালু, পালক পুত্রের হাতে একই পরিবারের তিনজন খুন, সংসদীয় ও স্থানীয় সরকারের নির্বাচন, করোনায় জনপ্রতিনিধিদের মৃত্যুসহ নানা আলোচিত-সমালোচিত ঘটনা নিয়েই প্রাচীন জনপদ পাবনা থেকে বিদায় নিয়েছে ২০২০ সাল।

জেলার ৯ উপজেলা আর ১১ থানায় রয়েছে রাজনৈতিক, পারিবারিক ও জমিজমা নিয়ে বিরোধে নানা সংঘাত, সংঘর্ষ, মারামারি, হামলা-মামলা, পারিবারিক নানা অশান্তির কারণে আত্মহত্যা, যৌতুকের দাবিতে নির্যাতন, ধর্ষণ, সড়ক দূর্ঘটনা, অপহরণ, চাঁদাবাজি, কবর থেকে মস্তক বিচ্ছিন্ন করাসহ আইন শৃংখলা পরিপন্থী নানা ঘটনার সাক্ষী হয়ে রয়েছে বিদায়ী বছর।

একই পরিবারের তিনজনকে নৃশংসভাবে খুন
চলতি বছরের ৫ জুন পাবনা মধ্যশহরের দিলালপুর মহল্লায় বাসা থেকে রাজশাহী কৃষি উন্নয়ন ব্যাংকের অবসরপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আব্দুল জব্বার (৬৪), তাঁর স্ত্রী ছুম্মা খাতুন (৫০) ও মেয়ে সানজিদা খাতুনের (১৪) ক্ষতবিক্ষত মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। পুলিশের দাবি, নিহত আব্দুল জব্বার নিঃসন্তান ছিলেন। তিনি মেয়ে সানজিদাকে দত্তক দিয়েছিলেন। একই সঙ্গে পালিত পুত্র ছিল তানভীর। সম্পত্তির লোভেই তানভির পরিকল্পিতভাবে তাদেরকে হত্যা করে।

বিদ্যুৎ প্রকল্পের জন্যে যন্ত্রাংশ আমদানি ও নৌবন্দর চালু
রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রয়োজনীয় ভারী যন্ত্রপাতি ও সরঞ্জাম পরিবহনের জন্যে ২৯ আগস্ট পদ্মা নদীতে নৌবন্দর পুরোপুরি চালু হয়। ইতোমধ্যে রাশিয়া থেকে রিঅ্যাক্টর প্লান্টের ভারী ভারী যন্ত্রপাতি ও সরঞ্জাম নির্মাণস্থলে চলে এসেছে। বিদায় বছরেই বিভিন্ন সময়ে এই বন্দর দিয়েই কেন্দ্রের প্রথম ইউনিটের রিঅ্যাক্টর কম্পার্টমেন্টের বিভিন্ন প্রয়োজনীয় অংশ যেমন, ভিভিইআর-১২০০ চুল্লিপাত্র, চারটি স্টিম জেনারেটর ও বিভিন্ন ভারী যন্ত্রপাতি ওঠানো-নামানোর জন্যে পোলার ক্রেন সরবরাহ করা হয়েছে।

পদ্মা নদীর এই বন্দর তৈরি করতে সময় লেগেছে দেড় বছর। বছরের বিভিন্ন মৌসুমে নদীতে পানির গভীরতায় ১০ মিটারের পার্থক্য ধরে বন্দরটি তৈরি করা হয়েছে। বছরের সবসময় সেখানে কাজ চলবে। বর্ষা মৌসুমে বন্দরে বড় আকারের জাহাজও ভেড়ানো যাবে।

নগরবাড়ি নৌবন্দর
নৌপথ সমৃদ্ধ ও সচল রাখতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উদ্যোগে ২৭ ফেব্রুয়ারি নগরবাড়ি নৌবন্দর নির্মাণ কাজ শুরু হয়। আগামি দুই বছরের মধ্যেই পাবনার নগরবাড়ি নৌবন্দর চালু হবে। এর ৫১৩ কোটি ৯০ লক্ষ টাকা নির্মাণ ব্যয় ধরা হয়েছে। দেশের উত্তরাঞ্চলের বিভিন্ন জেলায় মালামাল বিতরণের অন্যতম প্রধান কেন্দ্র এটি। এ ঘাট দিয়ে মূলত সার, সিমেন্ট, পাথর, বালু, কয়লা, খাদ্য সামগ্রী এবং বাল্ক সামগ্রী ওঠানামা করানো হয়।

বিএনপি নেতার দলবদল
নানা জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে টানা দুই যুগ পর পাবনা পৌরসভার মেয়র, তৎকালীন জেলা বিএনপির সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক কামরুল হাসান মিন্টু ২৪ ফেব্রুয়ারি আওয়ামী লীগে যোগ দেন। আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক, পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের তাকে বরণ করেন।

কামরুল হাসান মিন্টু ছাত্রলীগের রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত ছিলেন। তিনি সরকারি এডওয়ার্ড কলেজ ছাত্র সংসদের ভিপি ও জিএস নির্বাচিত হন। প্রয়াত সাংসদ বীর মুক্তিযোদ্ধা রফিকুল ইসলাম বকুল আওয়ামী লীগ ছেড়ে বিএনপিতে যোগ দেয়ায় তার সাথে কামরুল হাসান মিন্টুও যোগ দেন। যোগদানের কয়েক বছরের ব্যবধানে বিএনপির বিবাদমান দুটি গ্রুপের সৃষ্টি হয়।

ইতোমধ্যে টানা তিনবার তিনি পাবনা পৌরসভার মেয়র নির্বাচিত হন। ২০১৯ সালে বহিস্কারাদেশ প্রত্যাহারের উদ্যোগ কেন্দ্রীয় বিএনপি নিলেও পরে তা আলোর মুখ দেখেনি। অবশেষে তিনি আওয়ামীলীগের ফিরে আসলেন।

আলোচিত সিভিল সার্জনকে বদলী
স্বাস্থ্য বিভাগের মহাপরিচালক আবুল বাসার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম গত ২৯ অক্টোবর পাবনার চিকিৎসা সংশ্লিষ্ঠ দফতর ও হাসাপাতাল পরিদর্শণ করতে আসেন। এদিন জেলার স্বাস্থ্য বিভাগের কর্মকর্তাসহ সুধীজনদের সঙ্গে মত বিনিময় সভা শুরু করেন ডিজি। এসময় সিভিল সার্জন ডা. মেহেদী ইকবার সাংবাদিকদের সঙ্গে অশোভন আচরণ করে সভাকক্ষ থেকে বের করে দেন। তাৎক্ষণিকভাবে সাংবাদিকরা ডিজির সংবাদ বর্জনসহ সিভিল সার্জনকে প্রত্যাহারের দাবি জানান। এ ঘটনার পর জেলার আইনশৃংখলা কমিটির মাসিক মিটিংয়ে তাকে তিরস্কার করা হয়। ঘটনার কয়েকদিনের মাথায় ওই সিভিল সার্জনকে বদলী করে গাইবান্ধা সদর হাসপাতালের সহকারী পরিচালক পদে বদলী করা হয়।

কবর থেকে লাশের মাথা কেটে চুরি
১২ নভেম্বর ঈশ্বরদী উপজেলার জয়নগর গোরস্থান থেকে ফজিলা খাতুন (৮৫) নামে এক বৃদ্ধা মহিলার মরদেহ থেকে মস্তক বিচ্ছিন করে চুরি করে নিয়ে যায়। কবরটি খোলাবস্থায় এবং মস্তক বিহিন লাশটি পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়রা বিষয়টি টের পায়। ঘটনার পর থেকে পুলিশ এখনও বিষয়টি স্পষ্ট হতে পারেনি। তবে স্থানীয়দের ধারণা, যাদু টোনার কাজে ব্যবহারের জন্য হয়তো দূর্বৃত্তরা মরদেহ থেকে মস্তকটি কেটে চুরি করে নিয়ে গেছে।

খুন, ধর্ষণ, অপহরণ, চাঁদাবাজি, হামলা-মামলা, সংঘর্ষ ও সড়ক দূর্ঘটনা
রাজনৈতিক, পারিবারিক ও আধিপত্য বিস্তার নিয়ে জেলায় প্রায় অর্ধশত হামলা, মামলা, ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া, মারধরের ঘটনা ঘটেছে। পৃথক ঘটনাগুলোতে অসংখ্য হতাহতের ঘটনা ঘটে। পারিবারিক সংঘাত-অশান্তি, প্রেম, পরকিয়া, অভিমান ও ইচ্ছে পূরণ না হওয়ায় জেলায় পুলিশ ও স্থানীয়দের ভাষ্যে কমপক্ষে ৩০-৪০ জনের আত্মহত্যার ঘটনা ঘটেছে।

যৌতুক, পারিবারিক নির্যাতনসহ বেশ কয়েকটি ঘটনা ঘটেছে। প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে শুরু করে স্কুল, কলেজ ও মাদ্রাসার বেশ কয়েকজন শিক্ষার্থী ধর্ষণের শিকারও হয়েছে। বেপরোয়া বাইক চালানো, বাস ট্রাকের চাপাসহ নানা ধরণের সড়ক দূর্ঘটনায় জেলায় পুরো বছরে শতাধিক প্রাণহানির ঘটনা ঘটে।

করোনা পরিস্থিতি
চলতি বছরের মার্চে করোনা আঘাত হানলেও পাবনাতে প্রথম ১৬ এপ্রিল করোনা রোগি সনাক্ত হয়। সিভিল সার্জন অফিস সূত্র অনুযায়ি করোনা শুরু থেকে বিদায়ী বছর পর্যন্ত এ জেলায় ২৩ হাজার ৬৯৩ জনের নমুনা পরীক্ষা করে সনাক্ত হয়েছে ১৪৪৪ জন। আর মারা গেছে ১০ জন।

করোনা ভাইরাস আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা বাড়লেও এখন পর্যন্ত এ জেলায় চিকিৎসা ব্যবস্থার কোনো উন্নতি হয়নি। করোনা চিকিৎসায় শুরু থেকেই ২৫০ শয্যা পাবনা জেনারেল হাসপাতালের কোভিড ইউনিটে সেবা দেয়া হচ্ছে। এখানে ১০০ শয্যার ব্যবস্থা করা হয়েছে। কিন্তু এখন পর্যন্ত ১৩৮ জন সন্দেহভাজন রোগি ভর্তি করা হয়। যার মধ্যে ৩০ জন করোনা আক্রান্ত ছিলেন। পর্যাপ্ত চিকিৎসা সেবা না থাকায় অধিকাংশ রোগি হাসপাতাল মুখি নয়।

সিটি স্ক্যান সংযোজন
স্বাস্থ্য বিভাগ পাবনা জেনারেল হাসপাতালে প্রায় দুই কোটি টাকা মূল্যের অত্যাধুনিক সিটি স্ক্যান মেশিন বরাদ্দ দেয় । হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে বিদ্যুৎ বিভাগ ও গণপূর্ত বিভাগের অসহযোগিতায় প্রায় ১ বছর সিটি স্ক্যান মেশিনটি বিদ্যুৎ সংযোগের অভাবে ব্যবহার না করেই ফেলে রাখা হয়েছিল। বিভিন্ন গণমাধ্যমে বিষয়টি প্রকাশের পর ২৭ ডিসেম্বর আনুষ্ঠানিক ভাবে উদ্বোধন করা হয়েছে।

পাবিপ্রবিতে শিক্ষকদের মধ্যে হাতাহাতি
১৬ ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবসে ফুল দেয়াকে কেন্দ্র করে পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকদের দুই গ্রুপের মধ্যে বাকবিতণ্ডা হয়। এর এক পর্যায়ে হাতাহাতি ও ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে।

এছাড়া বিশ্ববিদ্যালয়টির অনিয়ম, দূর্নীতির প্রতিবাদে চলতি বছরের ৫ নভেম্বর বাংলা বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ও সামাজিক অনুষদের সাবেক ডীন ড. এম আব্দুল আলীম অবস্থান কর্মসূচি পালন করেন। এ একক কর্মসূচিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের সামনে আট দফা দাবি জানান তিনি। যা এ জেলায় আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে পরিণত হয়।

আরও পড়ুন : পাবনা জেলার ইতিহাস

ভয়েস টিভি/এমএইচ
যোগাযোগঃ
ভয়েস টিভি ৮০/৩, ভিআইপি রোড, খান টাওয়ার, কাকরাইল,
ঢাকা-১০০০, বাংলাদেশ
ফোনঃ +৮৮ ০২ ৯৩৩৮৫৩০
https://bn.voicetv.tv/news/30237
© স্বত্ব ভয়েস টিভি 2021 — ভয়েস টিভি
শাপলা মিডিয়ার একটি প্রতিষ্ঠান
সর্বশেষ সংবাদ