Printed on Wed Mar 03 2021 7:52:12 AM

কী ঘটছে মিয়ানমারে?

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক
বিশ্ব
মিয়ানমারে
মিয়ানমারে
সোমবারের সেনা অভ্যুত্থানের পর মিয়ানমারের রাস্তায় রাস্তায় রাইফেল কাঁধে টহল দিচ্ছে দেশটির সেনারা। দেশটির নেত্রী অং সান সু চির পাল্টা অভ্যুত্থানের আহ্বানে কেউ যেন রাস্তায় জড়ো হতে না পারে এজন্য রাজধানী ও এর বাইরে সতর্ক অবস্থানে রয়েছে সেনারা। সড়ক পথে টহলের সঙ্গে বাড়ানো হয়েছে হেলিকপ্টারে নজরদাড়ি। সবমিলে একটি ‘ভীতিকর’ পরিস্থিতি বিরাজ করছে দেশটিতে।

এদিকে সু চি সম্পর্কে সরকারি কোনো তথ্য প্রকাশ করা হয়নি। এছাড়া দলটির একজন কর্মকর্তা এএফপিকে বলেছেন দলীয় কর্মকর্তাদের সঙ্গে সু চির এখনো কোনো যোগাযোগ হয়নি।

তবে সু চির একজন প্রতিবেশী তাকে দেখেছেন নিজ বাসার কম্পাউন্ডে।

এনএলডির প্রেস অফিসার কি তো এএফপিকে বলেছেন, ‘তার প্রতিবেশী একজন জানিয়েছেন যে তিনি (সু চি) ভালো আছেন জানাতে কিছু সময় কম্পাউন্ডে হাঁটাহাঁটি করেছেন।’

তবে সেনা কর্তৃপক্ষের দিক থেকে এখনো এনএলডি নেত্রীর বিষয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে কিছু জানানো হয়নি, যদিও ধারণা করা হচ্ছে যে তাকে গৃহবন্দী করে রাখা হয়েছে।

এদিকে ইয়াঙ্গনে দেশটির প্রধান বিমানবন্দর বন্ধ করে দেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন এয়ারপোর্টের ম্যানেজার। মিয়ানমার টাইমস পত্রিকা লিখেছে যে পহেলা জুন পর্যন্ত আন্তর্জাতিক এ বিমানবন্দর বন্ধ থাকবে এবং বাতিল করা হয়েছে সব ধরনের ফ্লাইট উঠা নামার অনুমতি।

অং সান সু চিসহ এনএলডি নেতাদের আটকে রাখা হলেও বেশিরভাগ স্টেট মিনিস্টারকে মুক্তি দিয়ে বাসায় গৃহবন্দী করে রাখা হয়েছে। এদিকে এমপিদের যে ডরমিটরিতে আটকে রাখা হয়েছে তার সামনে সেনা প্রহরা বসানো হয়েছে।

একজন এমপি ফোনে এএফপিকে বলেছেন, ‘আমাদের বাইরে যেতে দেয়া হচ্ছে না।’

এর মধ্যেই মঙ্গলবার এনএলডির ভেরিফায়েড ফেসবুক পাতায় দেয়া বিবৃতিতে সু চি, প্রেসিডেন্ট উইন মিন্টসহ অন্য নেতাদের মুক্তি দাবি করা হয়েছে।

বিবৃতিতে এনএলডি বলেছে, ‘আমরা একে রাষ্ট্র ও সেনাবাহিনীর ইতিহাসে একটি কালো দাগ হিসেবে দেখছি।’

সূত্র: বিবিসি

ভয়েস টিভি/এসএফ
যোগাযোগঃ
ভয়েস টিভি ৮০/৩, ভিআইপি রোড, খান টাওয়ার, কাকরাইল,
ঢাকা-১০০০, বাংলাদেশ
ফোনঃ +৮৮ ০২ ৯৩৩৮৫৩০
https://bn.voicetv.tv/news/34431
© স্বত্ব ভয়েস টিভি 2021 — ভয়েস টিভি
শাপলা মিডিয়ার একটি প্রতিষ্ঠান
সর্বশেষ সংবাদ