Printed on Wed Oct 20 2021 4:36:04 PM

'কখনো ভাবিনি বার্সেলোনা থেকে বিদায় নিতে হবে'

স্পোর্টস ডেস্ক
খেলার খবর
মেসির বার্সেলোনা থেকে বিদায়
মেসির বার্সেলোনা থেকে বিদায়
হঠাৎ করেই মেসিকে ছাড়া বার্সেলোনার খেলা দেখার কথা ভাবতে হবে, তা হয়তো তার ভক্ত-সমর্থকরা ভানেননি। কিন্তু সেটাই নির্মম বাস্তব হয়ে সবার সামনে উপস্থিত হয়েছে।


স্প্যানিশ লা লিগার বেঁধে দেওয়া আর্থিক ও কাঠামোগত নিয়মের বেড়াজালে পড়ে মেসির সঙ্গে নতুন চুক্তি করতে পারেনি বার্সা। তারা বিপুল পরিমাণ দেনায় দায়ে জর্জরিত। এমনকি মেসি বেতন ৫০ শতাংশ কমাতে রাজী হলেও তাদের খরচের অঙ্ক ছাড়িয়ে যাচ্ছে নির্ধারিত সীমা। ফলে শৈশবের ক্লাবের সঙ্গে বিচ্ছেদ ঘটানো ছাড়া কোনো বিকল্প থাকেনি তার।


রবিবার সংবাদ সম্মেলন কক্ষে সাংবাদিকদের পাশাপাশি ছিলেন মেসির স্ত্রী ও সন্তানরা, ছিলেন কোচ রোনাল্ড কোমান ও জাভি, কার্লোস পুয়োল, জেরার্দ পিকে, সার্জিও বুসকেতসসহ বার্সার বর্তমান ও সাবেক অনেক খেলোয়াড়। প্রিয় মুখদের সামনে দাঁড়িয়ে বিদায় জানাতে গিয়ে শুরুতেই চোখের জলে ভাসেন তিনি।


আবেগ মেসিকে ছুঁয়ে যাবে না-ই বা কেন? ২১ বছর আগে তিনি যখন বার্সেলোনায় এসেছিলেন, তখন তিনি ছিলেন ১৩ বছরের এক অমিত প্রতিভাবান কিশোর, যার সামনে ছিল উজ্জ্বল ভবিষ্যতের হাতছানি। আর বিদায়বেলায় তিনি বার্সার ইতিহাসের সেরা ফুটবলার তো বটেই, তর্কসাপেক্ষে ইতিহাসেরও সেরা খেলোয়াড়, যার অর্জনের ঝুলিতে অভাব নেই ব্যক্তিগত আর দলীয় সাফল্যের।


যে ক্লাব তাকে ফুটবল বিশ্বের চূড়ায় পৌঁছে দিয়েছে, সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে সেই ক্লাবকেই সামনে রাখেন মেসি, 'বার্সেলোনা বিশ্বের সেরা ক্লাবগুলোর একটি। তাদের দুর্দান্ত একটি দল রয়েছে। আরও অনেক খেলোয়াড় আসবে। কেবল এখন নয়, ভবিষ্যতেও আসবে। আর খেলোয়াড়রা আসে-যায়। (ক্লাব সভাপতি হোয়ান) লাপোর্তা যেমনটা বলেছেন, কোনো একজন খেলোয়াড়ের চেয়ে এই ক্লাব অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ।'


বয়সভিত্তিক স্তর পেরিয়ে ২০০৪ সাল থেকে মূল দলের হয়ে নিয়মিত খেলেছেন মেসি। এই ১৭ বছরে চোট আর বিশ্রাম ছাড়া বরাবরই বার্সার জার্সিতে দাপিয়ে বেড়িয়েছেন তিনি। কিন্তু সেই দৃশ্যের দেখা আর মিলবে না। আগামীতে তিনি অন্য কোনো ক্লাবের হয়ে দেখাবেন পায়ের জাদু।


জগতের চিরায়ত নিয়মে সবকিছুরই শেষ আছে, অতীত পেছনে ফেলে সামনে এগিয়ে যেতে হয়, সেটা মনে করিয়ে মেসি যোগ করেন, 'মানুষ বার্সেলোনার হয়ে আমাকে খেলতে না দেখা মানিয়ে নেবে। তারা অভ্যস্ত হয়ে যাবে। শুরুর দিকে কিছুটা অদ্ভুত লাগবে। কিন্তু শেষ পর্যন্ত তারা অন্য সবকিছুর মতো এটার সঙ্গেও মানিয়ে নেবে।'
যোগাযোগঃ
ভয়েস টিভি ৮০/৩, ভিআইপি রোড, খান টাওয়ার, কাকরাইল,
ঢাকা-১০০০, বাংলাদেশ
ফোনঃ +৮৮ ০২ ৯৩৩৮৫৩০
https://bn.voicetv.tv/news/50577
© স্বত্ব ভয়েস টিভি 2021 — ভয়েস টিভি
শাপলা মিডিয়ার একটি প্রতিষ্ঠান
সর্বশেষ সংবাদ