Printed on Tue Apr 13 2021 8:35:09 PM

অব্যাহত লোকসানে বন্ধ ঠাকুরগাঁওয়ের সিনেমা হলগুলো

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি
বিনোদনভিডিও সংবাদ
সিনেমা হলগুলো
সিনেমা হলগুলো
অব্যাহত লোকসান, নিম্নমানের ছবি প্রদর্শন ও ইন্টারনেট সুবিধার আসার পর থেকে দর্শক হারিয়েছে ঠাকুরগাঁওয়ের সিনেমা হলগুলো । জেলার ১৬টি সিনেমা হলের মধ্যে ১৪টি সিনেমা হল বন্ধ হয়ে গেছে। রয়েছে মাত্র দুটি।

বন্ধ হওয়া হলগুলো ভেঙে বসতবাড়ি, বিদ্যালয় কিংবা মার্কেট নির্মাণ করা হয়েছে। ঠাকুরগাঁও থেকে শাকিল আহমেদ এর পাঠানো তথ্য ও চিত্রে বিস্তারিত জানাচ্ছেন আনজাম খালেক।

জানা গেছে, উত্তরের সীমান্তবর্তী জেলা ঠাকুরগাঁওয়ে একসময় ১৬টি সিনেমা হল চালু ছিলো। সেসময় সাড়া জাগানো চলচ্চিত্র বেদের মেয়ে জোসনা, রুপবান, খায়রুন সুন্দরী, কিরনমালা ছবি দেখার জন্য প্রত্যন্ত অঞ্চল থেকে দর্শকরা মিনিবাস, ট্রাক্টর, পিকআপ বা ভ্যান ভাড়া করে ঠাকুরগাঁওয়ের সিমেনা হলগুলোতে আসতো।

উপচে পড়া দর্শকের টিকিট পাওয়া নিয়ে চলতো প্রতিযোগিতা। সিনেমা প্রেমীদের ভিড় সামাল দিতে হিমশিম খেতে হতো হল মালিকদের। তখন জেলার সবকটি সিনেমা হল সারা বছরই থাকত জমজমাট।

কিন্তু এখন ঠাকুরগাঁওয়ের সিনেমা হলের সেই সোনালী অতীত ইতিহাস মাত্র। একদিকে নিম্ন মানের ছবি প্রদর্শন, নোংড়া পরিবেশ, অন্যদিকে ইন্টারনেট সুবিধা আসার পর থেকেই সিনেমা হলগুলো থেকে মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে মানুষজন। এ কারণে দর্শক হারিয়েছে হলগুলো।

পরিবার-পরিজন নিয়ে যাওয়ার মতো হলগুলোতে সিনেমা কমে যাওয়ায় এ অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে। পুরনো দিনের সিনেমাগুলো ভুলতে বসেছে সাধারণ মানুষ। বর্তমান প্রজন্ম এক সময় সিনেমা হল বলতে কোনো জিনিস ছিল সেটা বলতেই পারবে না। এখন মানুষজন ঝুঁকে পড়েছে ইন্টারনেট জগতে।

লোকসানের কারণে বন্ধ হয়ে গেছে জেলার ১৪টি সিনেমা হল। এতে নষ্ট হচ্ছে হলের বিভিন্ন জিনিসপত্র। চালু রয়েছে জেলার রাণীশংকৈল উপজেলায় একটি ও পীরগঞ্জ উপজেলায় একটি সিনেমা হল। এই হল দুটিও প্রায় বন্ধের পথে। বন্ধ হওয়া হলগুলো ভেঙে বসতবাড়ি, গোডাউন ঘর, বিদ্যালয় কিংবা মার্কেট নির্মাণ করা হয়েছে।

সিনেমা হলের মালিকরা জানান, লোকসানের কারণেই হলগুলো বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। সরকারি সহযোগিতা, মানসম্মত ছবি ও আধুনিকায়ন করে পুরোন রূপে হলগুলোকে ফিরিয়ে আনা সম্ভব। তাই সরকারি সহযোগিতার দাবি জানান তারা।

ঠাকুরগাঁওয়ের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক নুর কুতুবুল আলম বলেন, সিমেনা হল মালিকদের সঙ্গে আলোচনা করে বন্ধ হওয়া হলগুলো পুনরায় চালুর চেষ্টা করা হচ্ছে। হলগুলো চালু করার ক্ষেত্রে সরকারি সহযোগিতার প্রয়োজন হলে সেই ব্যবস্থাও করা হবে বলে জানান তিনি।

সরকারি সহযোগিতায় বন্ধ হওয়া সিনেমা হল চালু করে চলচ্চিত্র জগতের সেই সোনালী অতীত ফিরিয়ে আনা হবে-এমনটাই প্রত্যাশা সুধিমহলের।

আরও পড়ুন : বন্ধ সিনেমা হল খুলতে আর্থিক সহায়তা দেয়া হবে: প্রধানমন্ত্রী

ভয়েস টিভি/এমএইচ
যোগাযোগঃ
ভয়েস টিভি ৮০/৩, ভিআইপি রোড, খান টাওয়ার, কাকরাইল,
ঢাকা-১০০০, বাংলাদেশ
ফোনঃ +৮৮ ০২ ৯৩৩৮৫৩০
https://bn.voicetv.tv/news/39113
© স্বত্ব ভয়েস টিভি 2021 — ভয়েস টিভি
শাপলা মিডিয়ার একটি প্রতিষ্ঠান
সর্বশেষ সংবাদ