Printed on Sun Jun 20 2021 4:35:49 AM

সংক্রমণে ফের রেকর্ড: ২৪ ঘণ্টায় ভারতে দুই লাখ ১৭ হাজার রোগী শনাক্ত

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক
বিশ্ব
১৭ হাজার
১৭ হাজার
ভারতে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত আরও দুই লাখ ১৭ হাজার ৩৫৩ জনকে শনাক্ত করা হয়েছে। এটিই এখন পর্যন্ত দেশটিতে একদিনে সর্বোচ্চ শনাক্ত। এ নিয়ে টানা দ্বিতীয় দিনের মতো দেশটিতে দৈনিক দুই লাখের বেশি রোগী শনাক্ত হলো।

এখন পর্যন্ত দেশটিতে এক কোটি ৪২ লাখ ৯১ হাজার ৯১৭ জন শনাক্ত হয়েছেন। সংক্রমণের দিক থেকে বিশ্বের মধ্যে ভারতের অবস্থান বর্তমানে দ্বিতীয়তে।

একই সময়ে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন আরও এক হাজার ১৮৫ জন। করোনায় এ পর্যন্ত ভারতে মারা গেছেন এক লাখ ৭৪ হাজার ৩০৮ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন আরও এক লাখ ১৭ হাজার ৩০২ জন। মোট সুস্থ হয়েছেন এক কোটি ২৫ লাখ ৪৭ হাজার ৮৬৬ জন।

১৬ এপ্রিল শুক্রবার টাইমস অব ইন্ডিয়ার প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সংক্রমণ সবচেয়ে বেশি মহারাষ্ট্রে। এরপর রয়েছে কেরালা, কর্ণাটক, তামিল নাড়ু, অন্ধ্রপ্রদেশ, দিল্লি ও উত্তর প্রদেশ। গত ২৪ ঘণ্টায় মহারাষ্ট্রে শনাক্ত হয়েছেন ৬১ হাজার ৬৯৫ জন।

দেশটিতে বর্তমানে অ্যাকটিভ রোগী রয়েছেন ১৫ লাখ ৬৯ হাজার ৭৪৩ জন।

ভারতের বড় শহর ও অর্থনৈতিক রাজধানী মুম্বাইয়ে করোনাভাইরাসের বিস্তার নিয়ন্ত্রণে লকডাউন দেওয়া হয়েছে। গত বুধবার রাত থেকে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত মহারাষ্ট্র রাজ্যের বেশির ভাগ শিল্প, ব্যবসা ও জনসমাগম বন্ধ করা হয়েছে এবং ১৫ দিনের জন্য মানুষের অবাধ চলাচল সীমাবদ্ধ করা হয়েছে। তবে ট্রেন ও উড়োজাহাজ পরিষেবা চালু রয়েছে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, সাম্প্রতিক স্থানীয় ও রাজ্য নির্বাচনের বিশাল রাজনৈতিক সমাবেশ এবং হিন্দুদের বড় উৎসব কুম্ভমেলায় উত্তরের শহর হরিদ্বারের গঙ্গা নদীতে স্নান করা ছিল করোনা সংক্রমণ বিস্তারের বড় কারণ।

মহারাষ্ট্র, মধ্যপ্রদেশ, গুজরাট এবং আরও বেশ কয়েকটি রাজ্যের হাসপাতালে রোগীদের উপচেপড়া ভিড় ছিল। বেশ কয়েকটি হাসপাতালে অক্সিজেন সিলিন্ডারের ঘাটতি রয়েছে বলে জানা গেছে।

ভারতীয় গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত অঞ্চলের শ্মশান ও সমাধিস্থলগুলোতে শেষকৃত্যের জন্য আগত লাশের সংখ্যা সামাল দিতে হিমশিম খেতে হচ্ছে।

গত বছরের ৩০ জানুয়ারি ভারতে প্রথম করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়। জনস হপকিনস ইউনিভার্সিটির করোনাভাইরাস রিসোর্স সেন্টারের তথ্য অনুযায়ী, সংক্রমণের দিক থেকে বর্তমানে বিশ্বে ভারতের অবস্থান দুই নম্বরে। ভারতের আগে রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র ও পরে ব্রাজিল।

ভয়েস টিভি/এসএফ
যোগাযোগঃ
ভয়েস টিভি ৮০/৩, ভিআইপি রোড, খান টাওয়ার, কাকরাইল,
ঢাকা-১০০০, বাংলাদেশ
ফোনঃ +৮৮ ০২ ৯৩৩৮৫৩০
https://bn.voicetv.tv/news/41954
© স্বত্ব ভয়েস টিভি 2021 — ভয়েস টিভি
শাপলা মিডিয়ার একটি প্রতিষ্ঠান
সর্বশেষ সংবাদ