Printed on Tue Nov 30 2021 9:38:47 AM

কুড়িগ্রামে তিস্তার ভাঙনে ৪শ বাড়ি বিলিন, ৫শ’ হেক্টর বীজতলা নষ্ট

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি
সারাদেশ
কুড়িগ্রামে তিস্তায়
কুড়িগ্রামে তিস্তায়
কুড়িগ্রামে পানি নেমে যাওয়ার সাথে সাথে তিস্তা নদীতে দেখা দিয়েছে তীব্র ভাঙন। গত এক সপ্তাহে জেলার রাজারহাট, উলিপুর ও চিলমারী উপজেলার ৯ ইউনিয়নের ৪ শতাধিক বাড়িঘর বিলিন হয়ে গেছে। নষ্ট হয়েছে ৫শ’ হেক্টর ধান, আলু, মাসকালই, বেগুন, মরিচ ও বাদামের বীজতলা। স্থায়ীভাবে ভাঙন প্রতিরোধ ব্যবস্থা নেয়ার দাবী এলাকাবাসীর।

ভারত হঠাৎ করে ডালিয়া ব্যারেজ খুলে দেয়ায় উজানের পানি তিস্তা নদীর প্রবলভাবে বিপদসীমার উপর দিয়ে অতিক্রম করে চলতি মাসের ২০ অক্টোবর থেকে। এসময় লণ্ডভণ্ড হয়ে যায় কুড়িগ্রামের রাজারহাট উপজেলার ঘড়িয়ালডাঙ্গা ও বিদ্যানন্দ ইউনিয়নের প্রায় ৩ হাজার মানুষের বসতবাড়ী, গাছপালা, আবাদি জমি, আসবাবপত্রসহ ব্যবহার্য জিনিষপত্র। তীব্র বন্যায় ক্ষতি হয়েছে পার্শবর্তী উলিপুর ও চিলমারী উপজেলার প্রায় ৯ ইউনিয়নের প্রায় ১০ হাজার মানুষের। এতে প্রায় ৫শ’ হেক্টর ধান ও সব্জি ক্ষেত নষ্ট হয়েছে গেছে।

এদিকে স্রোতের টানে নদী ভাঙনের কবলে পড়েছে নদীতীরবর্তী মানুষ। কেউ কেউ অন্যত্র সরিয়ে নিচ্ছে ঘরবাড়ী। বেশ কয়েকটি পয়েন্টে নদী ভাঙনে প্রায় বাড়ীঘর আবাদি জমি হারিয়ে দিশেহারা এলাকাবাসী।

স্থানীয় প্রতিমন্ত্রী, সংসদ সদস্য, জেলা প্রশাসক ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ঘটনাস্থলে পৌঁছে ভাঙ্গন কবলিতদের দুর্দশা দেখে সমবেদনা জানালেও কোন কাজ না শুরু করায় হতাশ তারা।

রাজারহাট উপজেলার ঘড়িয়ালডাঙ্গা এলাকার আমিনুল ইসলাম ভয়েসটিভিকে বলেন, হঠাৎ করে উজানে ভারত থেকে নেমে আসা তিস্তা নদীর প্রবল স্রোতে আমাদের সব কিছু লণ্ডভণ্ড করে দিয়েছে। স্থায়ীভাবে ভাঙন প্রতিরোধে ব্যবস্থা নেয়ার জন্য সরকারের কাছে দাবি করছি।

রাজারহাট উপজেলার, বিদ্যানন্দ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. তাজুল ইসলাম ভয়েসটিভিকে বলেন, ব্যাপক ক্ষতির সম্মুক্ষিণ ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকদের ভর্তূকি দেয়ার ব্যবস্থা করা এবং নদী ড্রেজিং করে নদী শাসনের দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহণ করার দাবী জানান উচ্চ মহলের নিকট।

কুড়িগ্রাম পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. আব্দুল্লাহ আল মামুন ভয়েসটিভিকে জানান, রাজারহাট উপজেলার ঘড়িয়ালডাঙ্গা ও বিদ্যানন্দ ইউনিয়নে তিস্তা নদীর বাম তীরে ভাঙন কবলিত স্থানে বালু ভর্তি জিও ব্যাগ ফেলে জরুরী কাজ বাস্তবায়ন করছি। এছাড়াও অন্যান্য এলাকায় ভাঙন প্রতিরোধে উর্ধ্বতন দপ্তরে কারিগরি কমিটি গঠনের নোট প্রেরণ করেছি। কারিগরি কমিটি এখানে ভিজিট করে যে পরামর্শ দিবে সে মোতাবেক আমরা প্রকল্প প্রস্তাবনা গ্রহন করবো।

ভয়েসটিভি/এমএম
যোগাযোগঃ
ভয়েস টিভি ৮০/৩, ভিআইপি রোড, খান টাওয়ার, কাকরাইল,
ঢাকা-১০০০, বাংলাদেশ
ফোনঃ +৮৮ ০২ ৯৩৩৮৫৩০
https://bn.voicetv.tv/news/57076
© স্বত্ব ভয়েস টিভি 2021 — ভয়েস টিভি
শাপলা মিডিয়ার একটি প্রতিষ্ঠান
সর্বশেষ সংবাদ