Printed on Tue Jan 25 2022 5:44:00 PM

টাইটানিক সিনেমার অজানা কথা ও বাদ পড়া চুমুর দৃশ্য

বিনোদন ডেস্ক
বিনোদনভিডিও সংবাদ
টাইটানিক
টাইটানিক
জেমস ক্যামেরন মানেই অসাধারণ আর ব্লকবাস্টার সব চলচ্চিত্র। ক্যামেরন নির্মিত সবচেয়ে আলোচিত, বিখ্যাত আর নজরকাড়া ব্যয়বহুল সিনেমাগুলোর মধ্যে অন্যতম টাইটানিক। ১৯৯৭ সালে মুক্তি পাওয়া এই সিনেমার মূল গল্প গড়ে উঠেছিল বহুল আলোচিত টাইটানিক জাহাজকে কেন্দ্র করে।

টাইটানিক জাহাজ যার প্রথম যাত্রাতেই আটলান্টিক সাগরের ঠান্ডা পানিতে ডুবে গিয়েছিল আর হয়েছিল অনেকগুলো প্রাণের অকালমৃত্যুর কারণ। খুব কম মানুষেরই ভাগ্য হয়েছিল অন্ধকার আর শীতল ভয়ের সেই রাতটাকে পেরিয়ে পরের দিনের ভোরের আলো দেখার। আর সেই কয়েকজন সৌভাগ্যবানের ভেতরেই ছিলেন রোজ নামের একটি মেয়ে। যিনি কিনা বেঁচে ফিরেছিলেন কেবল জাহাজে খুঁজে পাওয়া নিজের ভালোবাসার মানুষ জ্যাকের মৃত্যুর মাধ্যমে। ছবিটিতে রোজের চরিত্রে অভিনয় করেন কেট উইন্সলেট আর জ্যাকের ভূমিকায় লিওনার্দো ডিক্যাপ্রিও।

চলচ্চিত্রটি মুক্তির পর থেকেই সারা বিশ্বে আলোড়ন তৈরি করে। ১১টি শাখায় জিতে নেয় অস্কার। সেই ছবিটিতে অনেক রোমান্টিক, বেদনার দৃশ্য রয়েছে যা মুগ্ধ করে রেখেছে দর্শকদের। তবে আমরা জানাবো টাইটানিকের না জানা কিছু নতুন তথ্য। যা আপনাকে টাইটানিকের প্রতি মুগ্ধ হতে বাধ্য করতে পারে আরো একবার। ছবিটি থেকে বেশ কিছু চুম্বন দৃশ্য বাদ দেয়া হয় পরিচালকের ইচ্ছায়। এছাড়া জ্যাক ও রোজের আকাশের তারা দেখার একটি দৃশ্য বাদ দেয়া হয়।

ছবির নায়িকা কেট উইন্সলেটকে জানানো হয় যে তার নায়ক লিওনার্দোর সামনে নগ্ন হতে হবে। কেট ঠিক করেন লজ্জা কাটাতে প্রথম দেখায় লিওনার্দোকে চমকে দিবেন। পরে অবশ্য ছবিতে শুটিংয়ের আগেই কেট অভিনব কায়দায় নগ্ন হয়েছিলেন লিওনার্দোর সামনে। আর হ্যাঁ, টাইটানিক ছিলো দু`জনের একত্রে করা প্রথম সিনেমা। এদিকে গোধূলিবেলার আলোর ভেতরে জ্যাক আর রোজের খাওয়া সেই বিখ্যাত চুমু আদতে গোধূলিতে ছিল না। এর পুরোটাই ছিল কম্পিউটারের কারসাজি।

টাইটানিকের প্রথম ধারণ করা দৃশ্যটি ছিলো কেট উইন্সলেটের নগ্ন ছবি আঁকছেন লিওনার্দো ডি ক্যাপ্রিও। এই দৃশ্য দিয়েই ছবিটির শুটিং শুরু হয়। সিনেমায় কেটের নগ্ন ছবির দৃশ্য আঁকায় লিওনার্দোর যে হাত দেখা যায় সেটা আসলে পরিচালক জেমস ক্যামরনের হাত। আসলে কেটের নগ্ন ছবিটি এঁকেছিলেন পরিচালক স্বয়ং।

ছবিটিতে দেখা যায় রোজ মারা যাচ্ছেন এবং জাহাজের সিঁড়িতে দুজনের প্রথম সাক্ষাতের দৃশ্য কল্পনা করছেন। যাতে পেছনে থাকা ঘড়িটির সময় ছিলো ২টা বেজে বিশ মিনিট। আসলে ওটা ছিলো টাইটানিকের ডুবে যাওয়ার সময়কার ঘড়ির সময়। ছবিটির একটা সংলাপ ছিলো যাতে লিওনার্দো কেটকে বলেন ‘বিছানার উপর শুয়ে পড়ো, উহু সোফাটির উপর’। মুলত স্ক্রিপ্টে সংলাপটি ছিলো ‘সোফার উপর শুয়ে পড়ো’। লিওনার্দোর করা এই মধুর ভুলটি তার পরিচালক কাটতে চাননি। তাই সেভাবেই থেকে গেছিলো।

ছবিটির জন্য সবচেয়ে বড় অজানা চমক জাগানিয়া তথ্য হলো রোজের ভূমিকায় দুর্দান্ত অভিনয় করা কেটকে এই চরিত্রে নিতে একদমই রাজি ছিলেন না পরিচালক জেমস ক্যামেরন! এদিকে টাইটানিকই হলো অস্কারে সেরা সিনেমার স্বীকৃতি পাওয়া বিশ্বের প্রথম সিনেমা যার প্রযোজনা, পরিচালনা, লেখা, এডিটিং সবটাই করেন একজন। জেমস ক্যামেরন। ছবিটিতে পানিতে পড়া মানুষদের কাঁপতে থাকা দৃশ্যগুলো আসলে নেওয়া হয়েছিল মেক্সিকোর ৮০ ডিগ্রি উত্তাপের ভেতরে।

ভয়েসটিভি/এএস
যোগাযোগঃ
ভয়েস টিভি ৮০/৩, ভিআইপি রোড, খান টাওয়ার, কাকরাইল,
ঢাকা-১০০০, বাংলাদেশ
ফোনঃ +৮৮ ০২ ৯৩৩৮৫৩০
https://bn.voicetv.tv/news/62141
© স্বত্ব ভয়েস টিভি 2022 — ভয়েস টিভি
শাপলা মিডিয়ার একটি প্রতিষ্ঠান
সর্বশেষ সংবাদ