Printed on Mon Oct 18 2021 5:17:59 PM

প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে ৩৮ কোটি টাকা অনুদান দিলো শিক্ষা মন্ত্রণালয়

জাতীয়
প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিল
প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিল
ভয়েস রিপোর্ট: করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে কর্মহীন, অসহায়, দরিদ্র মানুষকে সহায়তা দেয়ার জন্য প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ ও কল্যাণ তহবিলে ৩৮ কোটি ২২ লাখ ৬৭ হাজার ৩৬৩ টাকা দিয়েছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। এর মধ্যে ২৯ কোটি ৯২ লাখ উনত্রিশ হাজার টাকা দিয়েছে মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগ। বাকী অর্থ প্রদান করে মাদ্রাসা ও কারিগরি শিক্ষা বিভাগ। শিক্ষা মন্ত্রী ডা. দীপু মনি এই অর্থের চেক হস্তান্তর করেন। প্রধানমন্ত্রীর পক্ষে চেক গ্রহণ করেন প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব ড. আহমদ কায়কাউস। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী এমপি, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের সচিব মো: মাহাবুব হোসেন, কারিগরি ও মাদ্রাসা শিক্ষা বিভাগের সচিব মুনশী শাহাবুদ্দীন আহমেদ, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক প্রফেসর ড. সৈয়দ মোঃ গোলাম ফারুক। শিক্ষামন্ত্রী শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সব কর্মচারীকে তাদের একদিনের মূল বেতনের সমপরিমাণ অর্থ প্রদান করায় ধন্যবাদ জানান।

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের দুই বিভাগের মোট ৫ লাখ ১৯ হাজার ১০৮ জন কর্মচারী তাদের একদিনের মূল বেতনের সমপরিমাণ অর্থ প্রদান করেছেন। এর মধ্যে মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগ ও তার আওতাধীন ১৬টি দফতর ও প্রতিষ্ঠান থেকে পাওয়া ২৯ কোটি ৯২ লাখ ২৯ হাজার টাকা এবং কারিগরি ও মাদরাসা বিভাগ থেকে পাওয়া আট কোটি ৩০ লাখ ৩৮ হাজার টাকা মিলে মোট ৩৮ কোটি ২২ লাখ টাকা সংগ্রহ হয়েছে। তার মধ্যে মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগ এক কোটি ৭০ লাখ, বাংলাদেশ অ্যাক্রেডিটেশন কাউন্সিল ১৮ হাজার ৮৫৩ টাকা, বাংলাদেশ শিক্ষা তথ্য ও পরিসংখ্যান ব্যুরো এক লাখ ১৮ হাজার, এনটিআরসিএ এক দিনের বেতন ৪৭ হাজার এবং বিশেষ অনুদান হিসেবে আরো এক কোটি টাকা দিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি। প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা সহায়তা ট্রাস্ট ১৭ হাজার, বাংলাদেশ ইউনেস্কো কমিশন ২৯ হাজার, শিক্ষা প্রকৌশল অধিদফতর সাত লাখ, শিক্ষা প্রকৌশল অধিদফতরের ইঞ্জিনিয়ার্স অ্যাসোসিয়েশন এবং ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স অ্যাসোসিয়েশন পাঁচ লাখ করে ১০ লাখ টাকা, আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউশন ৩০ হাজার, মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতর তিন লাখ এবং এ অধিদফতরের আতওাধীন মাঠপর্যায়ে অফিসগুলো ২৬ কোটি ৫১ লাখ ১৪ হাজার টাকা, নায়েম এক লাখ ৮৯ হাজার, এনসিটিবি বেতনের অংশ দুই লাখ সাত হাজার এবং বিশেষ অনুদান হিসেবে আরো এক কোটি টাকা, ডিআইএ ৬৩ হাজার মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বোর্ডগুলো বেতনের অংশ ১১ লাখ ৫৯ হাজার এবং বিশেষ অনুদান হিসেবে আরো এক কোটি টাকা দিয়েছে।
কারিগরি ও মাদরাসা বিভাগ মোট আট কোটি ৩০ লাখ ৩৮ হাজার টাকা অনুদান হিসেবে সংগ্রহ করেছে। এর মধ্যে মন্ত্রণালয়ের কারিগরি ও মাদরাসা বিভাগ এবং জাতীয় কম্পিউটার প্রশিক্ষণ ও গবেষণা একাডেমি মিলে এক কোটি ৫৯ লাখ, কারিগরি অধিদফতর ৬২ লাখ ৫২৯ টাকা, কারিগরি শিক্ষা অধিদফতরাধীন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো ৭০ লাখ, মাদরাসা শিক্ষা অধিদফতর, মাদরাসা শিক্ষক প্রশিক্ষণ একাডেমি ও মাদরাসা অধিদফতরাধীন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলো সাত কোটি ৫৮ লাখ ১৬ হাজার দিয়েছে।
যোগাযোগঃ
ভয়েস টিভি ৮০/৩, ভিআইপি রোড, খান টাওয়ার, কাকরাইল,
ঢাকা-১০০০, বাংলাদেশ
ফোনঃ +৮৮ ০২ ৯৩৩৮৫৩০
https://bn.voicetv.tv/news/3847
© স্বত্ব ভয়েস টিভি 2021 — ভয়েস টিভি
শাপলা মিডিয়ার একটি প্রতিষ্ঠান
সর্বশেষ সংবাদ