Printed on Sat Sep 25 2021 10:00:15 AM

১০ আগস্ট আবার ওমরাহ হজ শুরু

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
বিশ্বধর্মভিডিও সংবাদ
১০ আগস্ট
১০ আগস্ট
করোনার কারণে দীর্ঘদিন বিদেশিদের সৌদি আরবে গিয়ে ওমরাহ পালনের অনুমতি দেয়নি সৌদি আরব। এমনকি হজের সময়ও অনুমতি দেয়া হয়নি। এবার সেই নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়ার ঘোষণা দিল দেশটি। আগামী ১০ আগস্ট থেকে আবার সৌদি আরবের বাইরের দেশের বাসিন্দারা ওমরাহ পালন করতে পারবেন। এখন সৌদির নাগরিক এবং দেশটিতে বসবাসকারীরা ওমরাহ পালনের সুযোগ পাচ্ছেন।

সৌদি আরবের রাষ্ট্রীয় সংবাদ সংস্থা এসপিএর বরাত দিয়ে সংবাদমাধ্যম গালফ নিউজ জানিয়েছে, মক্কা ও মদিনার পবিত্র দুই মসজিদ পরিচালনাকারী পর্ষদের প্রধান আবদুল রহমান আল সুদাইস ওমরাহ পালনকারী এবং মুসল্লিদের গ্রহণের জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষগুলোকে প্রস্তুতি শেষ করার নির্দেশনা দিয়েছেন। চলতি মাসের শুরুতে হজ পালনকে সামনে রেখে ওমরাহ হজের আবেদন গ্রহণ বন্ধ করে সৌদি আরবের হজ ও ওমরাহ মন্ত্রণালয়।

ওমরাহ পালনের অনুমতি দেয়ায় প্রায় ৫০০ ওমরাহ সেবাদানকারী কোম্পানি এবং প্রতিষ্ঠান তৎপর হয়ে উঠেছে। এর সঙ্গে যুক্ত কমপক্ষে ৬০০০ বিদেশি ওমরাহ বিষয়ক এজেন্টও।

যেসব মুসলিম ওমরাহ করতে চান, তারা ৩০টি ইলেকট্রনিক সাইট এবং প্লাটফরম থেকে ওমরাহ প্যাকেজ বুকিং দিতে পারবেন এবং সব রকম পেমেন্ট পরিশোধ করতে পারবেন। এসব ইলেকট্রনিক সাইট ও প্লাটফরম সারাবিশ্বেই আছে।

হজ ও ওমরাহ বিষয়ক জাতীয় কমিটির সদস্য হানি আলি আল-আমিরি বলেছেন, যারা করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে পূর্ণাঙ্গ টিকা নিয়েছেন, তারাই শুধু ওমরাহ করার জন্য ভিসার আবেদন করতে পারবেন। এ ছাড়া তাদেরকে চমৎকার সুস্থ অবস্থায় থাকতে হবে। বিদেশ থেকে যাওয়া ওমরাহ যাত্রীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার জন্য যেসব প্রোটোকল দেয়া হবে তা অবশ্যই মেনে চলতে হবে।

হানি আলি আল-আমিরি বলেন, সব রকম সেবা এবং প্যাকেজ অনলাইনে পাওয়া যাচ্ছে। বিশ্বজুড়ে তা উন্মুক্ত। বি২বি গ্রুপ অথবা বি২সি ব্যক্তিগতভাবে এসব প্লাটফরমে বুকিং দেয়া যাবে। এক্ষেত্রে সৌদি ওমরাহ বিষয়ক কোম্পানিগুলো আবাসন, পরিবহন ও অন্যান্য প্রয়োজনীয় সেবা প্যাকেজের মধ্যে রাখবে। ওমরাহযাত্রী তার পছন্দমতো একটি ওমরাহ সেবাদানকারী কোম্পানি বা প্রতিষ্ঠান বেছে নিতে পারবেন। ফ্লাইট, পরিবহন, হোটেল, খাওয়ার খরচ সবই ইলেকট্রনিক মাধ্যমে পরিশোধ করতে পারবেন।

এদিকে করোনা মহামারির মধ্যে টানা দ্বিতীয় বছরের মতো বিদেশিদের হজ পালন বন্ধ রেখেছে সৌদি আরব। গতবারের মতো এবারও শুধু সৌদি নাগরিক এবং দেশটিতে বসবাসকারীরা হজ করার সুযোগ পেয়েছেন।

এ বছর হজ পালন করতে কিছু শর্ত মেনে চলতে হয়েছে মুসল্লিদের। করোনার টিকার দুটি ডোজই নেয়া ব্যক্তিরা হজ পালনের সুযোগ পেয়েছেন। এ ছাড়া এক ডোজ নেয়ার পর অন্তত ১৪ দিন পার করা অথবা যাঁরা করোনা সংক্রমণ থেকে সেরে ওঠার পর টিকা নিয়েছেন, তাঁরাও হজ পালন করেছেন।

করোনা মহামারির কারণে সদ্যসমাপ্ত হজে সৌদী আরবের সীমান্তের মধ্যে থেকে ৬০ হাজার মানুষকে অনুমতি দেয়া হয়েছিল। তবে মোট ৫৮ হাজার ৫১৮ জন হজ পালন করেছেন। এর মধ্যে ৩২ হাজার ৮১৬ জন পুরুষ এবং বাকী ২৫ হাজার ৭০২ জন নারী। এ নিয়ে টানা দ্বিতীয়বার সৌদী সরকারকে করোনার কারণে হজযাত্রীদের সংখ্যা কমাতে হয়। ২০২০ সালে মহামারির কারণে মাত্র ১০ হাজার জন হজের অনুমতি পেয়েছিলেন।

ভয়েসটিভি/এএস
যোগাযোগঃ
ভয়েস টিভি ৮০/৩, ভিআইপি রোড, খান টাওয়ার, কাকরাইল,
ঢাকা-১০০০, বাংলাদেশ
ফোনঃ +৮৮ ০২ ৯৩৩৮৫৩০
https://bn.voicetv.tv/news/49616
© স্বত্ব ভয়েস টিভি 2021 — ভয়েস টিভি
শাপলা মিডিয়ার একটি প্রতিষ্ঠান
সর্বশেষ সংবাদ